মায়ের দুধ ছাড়াই বড় হতে হচ্ছে ফাতেমাদের

[ad_1]

হাসপাতালের নবজাতক নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে সংকটাপন্ন শিশুদের মায়েদের মধ্যে একে অপরের সন্তানের জন্য দুধ দান করার ঘটনা প্রায়ই ঘটে। তবে শিশুমণি নিবাসের শিশুদের জন্য এভাবে কোনো মা কখনো বুকের দুধ দান করেননি বলে জানিয়েছেন জুবলী বেগম।

ফাতেমার দাদা মোস্তাফিজুর রহমান গতকাল রোববার মুঠোফোনে প্রথম আলোকে বলেন, ফাতেমাকে প্রথমে যে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছিল, সেখানে অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে সন্তান প্রসব করা এক মা তাঁর বুকের দুধ পান করিয়েছিলেন। এরপর ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে দু-তিনজন মা বাটিতে করে বুকের দুধ দিয়ে গিয়েছিলেন। পাশাপাশি কৌটার দুধ খাওয়ানো হয়েছে।

ফাতেমা যে দোলনায় ছিল, সেখানে আরও তিনটি দোলনায় ছিল এক নবজাতক ও দুটি এক ও দুই মাস বয়সী শিশু। নিবাসের মেট্রন কাম নার্স তানিয়া সুলতানা জানান, এই চার শিশুকে বয়স অনুযায়ী কৌটার দুধ খাওয়ানো হচ্ছে।

বাংলাদেশ শিশু অধিকার ফোরাম পত্রিকার তথ্য সংকলন করে জানিয়েছে, এ বছরের জানুয়ারি থেকে জুন মাস পর্যন্ত ফেলে যাওয়া ১০টি নবজাতককে উদ্ধার করা হয়েছে। আর ১৪ নবজাতকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

[ad_2]

Source link

Leave a Comment