মুঠোফোনে ডেকে নেওয়ার পর দিঘিতে ভাসছিল লাশ

[ad_1]

নিহত ব্যক্তির স্ত্রী আঁখি নূর আক্তার প্রথম আলোকে বলেন, মঙ্গলবার রাত ১০টার দিকে পিয়াল নামের এক যুবক তাঁর স্বামীকে ফোন করে ডেকে নেন। যাওয়ার সময় স্বামী বলে যান, বাইরে সমস্যা হতে পারে। সমস্যা হলে স্ত্রীকে মুঠোফোনে জানাবেন। এর পর থেকেই সাইফুল নিখোঁজ ছিলেন।

কারও সঙ্গে তাঁর স্বামীর বিরোধ ছিল কি না, জানতে চাইলে আঁখি নূর আক্তার বলেন, সাইফুল ইসলাম একটি পত্রিকার সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। বিরোধের বিষয়ে তাঁর জানা নেই।

[ad_2]

Source link

Leave a Comment