বেশি দামে রাশিয়ার গম কেনার সমঝোতায় দুই ভাইয়ের ভূমিকা কী

[ad_1]

দাম কমার পরও আগের বেশি দামে রাশিয়ার গম কেনার ব্যাপারে খাদ্যসচিব বলেন, ওই দাম (টনপ্রতি ৪৩০ ডলার) সব বিবেচনায় সবচেয়ে কম। এতে বাংলাদেশ লাভবান হবে।

সাত্তারের রাশিয়ার মুঠোফোন নম্বরে ফোন করলে তিনি এই প্রতিবেদককে বলেন, ‘আমি এ ব্যাপারে কিছু বলতে চাই না। যা জানার দরকার, তা মন্ত্রণালয়ের কাছ থেকে জেনে নিন।’

ন্যাশনাল ইলেকট্রিকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আমিরুজ্জামান বলেন, ‘আমরা রাশিয়ার রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠানটির হয়ে পরামর্শক হিসেবে কাজ করেছি। এর বাইরে আর কিছু বলতে চাই না।’

প্রস্তাব বাতিল পাকিস্তানের

বাংলাদেশের পাশাপাশি পাকিস্তানেও গম রপ্তানির জন্য আগস্টে সমঝোতা স্মারক সই করে প্রডিনটর্গ। শুরুতে তারা পাকিস্তানে প্রতি টন গম ৪১০ ডলারে রপ্তানির প্রস্তাব দেয়।

বিশ্ববাজারে গমের দাম কমে যাওয়ায় পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী শাহবাজ শরিফ দেশটির ইকোনমিক কো-অর্ডিনেশন কমিটিকে দাম পুনর্মূল্যায়নের দায়িত্ব দেয়। কমিটি ৪১০ ডলারে রাশিয়ার গম কেনার প্রস্তাবটি বাতিল করে দেয়। তারা ৩৯০ ডলারে গম কেনার প্রস্তাব দেয়। এই দর নিয়ে এখন দুই দেশের মধ্যে আলোচনা চলছে।

[ad_2]

Source link

Leave a Comment