মানিকগঞ্জে যুবদল নেতা কাবুল হত্যার ২৩ বছর পর সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেপ্তার

[ad_1]

এরপর পুলিশ মনির, উজ্জ্বল ও মোশারফকে গ্রেপ্তার করে। পরবর্তী সময়ে উচ্চ আদালতে আপিল করলে ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল-৪ সাত আসামিকেই যাবজ্জীবন কারাদণ্ডাদেশ দেন। পরে উজ্জ্বল উচ্চ আদালতে আপিল করলে বিচারক মামলা থেকে তাঁকে অব্যাহতি দেন। প্রায় চার বছর আগে গ্রেপ্তার আসামি মোশারফ কারাগারে মারা যান। এ ছাড়া মনির বর্তমানে জেলহাজতে।

র‌্যাব-৪-এর সিপিসি-৩ মানিকগঞ্জ ক্যাম্পের কমান্ডার লে. কমান্ডার মোহাম্মদ আরিফ হোসেন বলেন, ঘটনার পর থেকেই আসামি বিপ্লব পলাতক। আত্মগোপনে থাকা অবস্থায় জাতীয় পরিচয়পত্রে বাবা ও মায়ের নাম ঠিক রেখে নিজের নাম বিপ্লবের পরিবর্তে শহিদুল ইসলাম ব্যবহার করতেন। এ ছাড়া তিনি ক্রমাগত পেশা পরিবর্তন করে আসছিলেন। প্রথমদিকে তিনি ঢাকার বিভিন্ন এলাকায় দোকানের কর্মচারী, ইলেকট্রিক মিস্ত্রি ও পরবর্তী সময়ে পরিবেশ অধিদপ্তরের আগারগাঁও অফিসে প্রতারণামূলক দালালির কাজ করতেন। আজ শুক্রবার সকালে গ্রেপ্তার আসামিকে সদর থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে বলে জানান র‌্যাবের এই কর্মকর্তা।

[ad_2]

Source link

Leave a Comment