পুতিনের যুদ্ধ ইউরেশিয়ায় চীনের আধিপত্যের সুযোগ করে দিচ্ছে

[ad_1]

রাশিয়ার দুর্বল হয়ে যাওয়া চীনের জন্যও সমস্যা সৃষ্টি করছে। সামরিক বিবেচনায় এ ধরনের দুর্বল মিত্র যুক্তরাষ্ট্রকে পেছনে ফেলে বৈশ্বিক নেতৃত্ব প্রতিষ্ঠায় চীনের যে সংকল্প, সেখানে বাধা তৈরি করে। আবার বস্তুগত অর্থে, রাশিয়ার প্রভাবাধীন এলাকা মধ্য এশিয়ায় শান্তি ও স্থিতিশীলতা বিঘ্ন হওয়ার অর্থ হচ্ছে, চীনের সম্পদ পাচার হয়ে যাওয়া। রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের কারণে বিশ্ব অর্থনীতির সরবরাহব্যবস্থা বিঘ্নিত হওয়ায় ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে চীনের অর্থনীতি। চীনে নতুন করে কোভিডের বিস্তার ঠেকাতে গিয়ে সেটা আরও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

গণতান্ত্রিক রাষ্ট্র ইউক্রেনের বিরুদ্ধে ক্রমে পরাজয়ের বৃত্তে ঢুকে পড়ছে রাশিয়া। এর অর্থ হচ্ছে, চীন এত দিন ধরে স্বৈরতান্ত্রিক সরকারের মডেলই সেরা বলে যে বয়ান দাঁড় করিয়েছে, তার মূলে বড় ধাক্কা। পুতিনের ইউক্রেন অভিযান যদি দ্রুত সাফল্য লাভ করত, তাহলে সেটা সি চিন পিংয়ের জন্য দরকারি হতো। কিন্তু এখন সেটা দায় হয়ে উঠেছে।

এশিয়া টাইমস থেকে নেওয়া, ইংরেজি থেকে অনুবাদ মনোজ দে

[ad_2]

Source link

Leave a Comment