আইটিইউ-র প্রথম নারী মহাসচিব বোগডান

[ad_1]

টেকশহর কনটেন্ট কাউন্সিলর: ইন্টারন্যাশনাল টেলিকমিউনিকেশন ইউনিয়নের (আইটিইউ) প্রথম নারী মহাসচিব হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন ডোরিন বোগডান মার্টিন। আগামি বছর থেকে তিনি এ দায়িত্ব পালন শুরু করবেন।

আন্তর্জাতিক টেলিগ্রাফ নেটওয়ার্ক ব্যবস্থাপনার জন্য ১৮৬৫ সালে আইটিইউ প্রতিষ্ঠিত হয়। এই সংস্থাটি এখন রেডিও, স্যাটেলাইট এবং ইন্টারনেটের ব্যবহার সহজতর করার জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে। আইটিইউ মূলত জাতিসংঘের প্রধান প্রযুক্তি বিষয়ক সংস্থা।

আইটিইউর মহাসচিব পদে রুশ প্রতিদ্ব›দ্বী রাশিদ ইসমাইলভকে ১৩৯ ভোটের মধ্যে ২৫ ভোটে পরাজিত করেছেন বোগডান মার্টিন। তিনি এখন হাউলিন ঝাও এর স্থলে স্থলাভিষিক্ত হবেন। ঝাও ২০১৪ সাল থেকে এ পদে দায়িত্ব পালন করছেন। অন্যদিকে মার্কিন নাগরিক বোগদান মার্টিন ২০২৩ সালের ১লা জানুয়ারি থেকে এ পদের দায়িত্ব পালন শুরু করবেন।

Techshohor Youtube

বোগডান জাতিসংঘের একটি সুপ্রাচীন সংস্থার দায়িত্ব গ্রহন করতে যাচ্ছেন; যে সংস্থাটি আন্তর্জাতিক যোগাযোগের অনেক পরিধি নিয়েই দায়িত্ব পালন করছে। আইটিইউ যেসব ক্ষেত্রে কাজ করছে তার মধ্যে বিশ্বব্যাপি স্যাটেলাইট কক্ষপথ, প্রযুক্তির মান সমন্বয় এবং উন্নয়নশীল বিশ্বে অবকাঠামোর উন্নয়ন উল্লেখযোগ্য।

বোগডান মার্টিন মহাসচিব পদে জয়ী হওয়ার পর বলেছেন, ‘বিভিন্ন অঞ্চলে বর্ধনশীল দ্বন্দ্ব, জলবায়ু সংকট, খাদ্য নিরাপত্তা, লিঙ্গ বৈষম্যের মতো নানাবিধ চ্যালেঞ্জের সম্মুখিন। এরওপর ২৭০ কোটি মানুষের কোন ইন্টারনেট অ্যাকসেস নেই।’ তিনি বিশ্বাস করেন আইটিইউ এ ধরনের অনেক সমস্যা সমাধানে সহায়তা করতে পারবে।

এদিকে বোগদান মার্টিন এর আগে আইটিইউর টেলিকমিউনিকেশন ডেভেলপমেন্ট ব্যুরোর পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। তিনি সেখানে কর্মসংস্থান সৃষ্টি, ডিজিটাল স্কিল উন্নয়ন, বৈচিত্র এবং লিঙ্গ সমতা নিয়ে কাজ করেছেন।
আইটিইউর শীর্ষ পদের জন্য তার প্রার্থীতায় খোদ মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন সমর্থন করেছিলেন।
বিবিসি/আরএপি



[ad_2]

Source link

Leave a Comment