Fiverr.com কি? এবং কিভাবে Fiverr থেকে টাকা ইনকাম করবেন

Fiverr.com কি : আজকের এই পোস্টে আমি আপনাদের সাথে আলোচনা করব ফাইবার ওয়েবসাইট সম্পর্কে ।আজকের আর্টিকেলটি পড়ে আপনি জানতে পারবেন ফাইবার কি এবং ফাইবার ব্যবহার করে কিভাবে ইনকাম করা যায় সেই সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য।

আপনি যখন গুগলে অনলাইনে কিভাবে টাকা ইনকাম করা যায় সে সম্পর্কে অনুসন্ধান করেছেন তখন নিশ্চয়ই আপনি একটি নাম শুনেছেন যে ফ্রিল্যান্সিং করে টাকা উপার্জন করা যায়। আর এই ফ্রিল্যান্সিং করার জন্য প্রয়োজন হয় বিভিন্ন ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস এর সেরকম একটি সহজ এবং ব্যবহারকারী ফ্রেন্ডলি ফ্রীল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস হলো ফাইবার। ঘরে বসে অনলাইনে অর্থ উপার্জনের সেরা মাধ্যম হতে পারে এই ফাইবার মার্কেটপ্লেস। আপনি আপনার দক্ষতা অনুযায়ী ঘরে বসে অনলাইনে যেকোনো কাজ করতে পারবেন এবং বিনিময়ে আপনি খুব ভালো করে মানে টাকা ইনকাম করতে পারবেন ।

বর্তমান সময়ে ইন্টারনেটে এরকম হাজারো ফ্রীল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস ওয়েবসাইট রয়েছে যেমন ফাইবার ফ্রিল্যান্সার, আপ ওয়ার্ক, ইত্যাদি। তবে এদের মধ্যে সবচেয়ে সহজ এবং সেরা ফ্রীল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস হলো ফাইবার।

বন্ধুরা অনলাইনে ইনকামের এই পদ্ধতিটি অন্য সব পদ্ধতির চেয়ে আলাদা। কারণ আপনি ফাইবার ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস এর মাধ্যমে আপনি একজন ব্যক্তির কাজ করে দিবেন এবং তার বিনিময়ে আপনাকে সে টাকা দিবে। এবং এই সমস্ত কাজ আপনি অনলাইনে খুব সহজেই করতে পারবেন্ ঘরে বসে আপনার স্মার্টফোনে অথবা কম্পিউটারের মাধ্যমে ফাইবার ব্যবহার করতে পারবে ।

Fiverr.com কি?

ফাইবার হলো এমন একটি অনলাইনে ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস যেখানে আপনি বিভিন্ন ধরনের অনলাইনে কাজ করতে পারবেন। কারণ ফাইবার মার্কেটপ্লেস এ রয়েছে বায়ার এবং সেলার। যেখানে একজন বায়ার তার চাহিদা মতো কাজ দিবে এবং আপনি সেই কাজগুলো আপনার দক্ষতার সাথে সম্পন্ন করে ফাইবার মার্কেটপ্লেস থেকে ইনকাম করতে পারবেন।

ফাইবার মার্কেটপ্লেস এর শুরু কবে?

Fiverr-এর নির্মাতারা হলেন Kaufman এবং Shai Wininger, তারা দুজনেই 2010 সালের ফেব্রুয়ারিতে Fiverr তৈরি করেছিলেন, যা আজ সারা বিশ্ব ব্যবহার করে, কেউ কাজ করতে চায় বা করাতে চায়, তারা উভয়ই এটি ব্যবহার করে।

ফাইবার কিভাবে কাজ করে?

আমি এই পোস্টের শুরুতেই বলেছি যে ফাইবার ফাইবার হচ্ছে একটি ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস ওয়েবসাইট যেখানে রয়েছে ক্লায়েন্ট এবং ফ্রিল্যান্সার প্রোফাইল। ফাইবার মার্কেটপ্লেস মূলত ক্লায়েন্ট এবং ফ্রিল্যান্সারদের সংযোগ করতেই কাজ করে যাচ্ছে।

আপনি যদি একজন প্রফেশনাল দক্ষতা সম্পন্ন ফ্রিল্যান্সার হন তাহলে আপনি ফাইবার মার্কেটপ্লেস এর মাধ্যমে ক্লায়েন্টের অনেক কাজ করতে পারবেন। সেখান থেকে ফাইবার মার্কেটপ্লেস আংশিক অংশ কেটে বাকি অংশ আপনাকে পেমেন্ট করে দেবে।

ফাইবার মার্কেটপ্লেস এ কি কি ধরনের কাজ পাওয়া যায়?

বন্ধুরা ফাইবার অনলাইনে ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসে অনেক ধরনের কাজ পাওয়া যায় যে কাজগুলো করে আপনি একজন সফল ফ্রিল্যান্সার হয়ে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

ফাইবার মার্কেটপ্লেসে প্রধানত যে কাজগুলো হয়ে থাকে।
গ্রাফিক্স এবং ডিজাইন।
ডিজিটাল মার্কেটিং।
রাইটিং এবং ট্রান্সলেশন।
ভিডিও এবং এনিমেশন।
গান এবং অডিও।
প্রোগ্রামিং এবং টেকনোলজি।
বিজনেস।
লাইফ স্টাইল।
তথ্য।
উপরের এই কাজগুলো আপনি ফাইবার মার্কেটপ্লেসে অফার করতে পারেন অথবা অন্য কাউকে দিয়ে অফার করাতে পারেন।

কিংবা আপনি যদি উপরের এই সেবা গুলোর কোন একটি বিষয়ে দক্ষতা অর্জন করে থাকেন তাহলে আপনি ফাইবার মার্কেটপ্লেসে সার্ভিস প্রদান করতে পারবেন।
ফাইবার মার্কেটপ্লেস এর মাধ্যমে কাজ করার জন্য আপনি টাকা পাবেন এবং কাজ করানোর জন্য আপনাকে টাকা দিতে হবে যা একটি সহজ বিষয়।

ফাইবার থেকে কিভাবে টাকা ইনকাম করবেন?

ফাইবার মার্কেটপ্লেস থেকে টাকা ইনকাম করার শুধু একটি উপায় নয় বরং আরো অনেক উপায় রয়েছে। ফাইবার মার্কেটপ্লেসে ক্লায়েন্ট তার চাহিদা অনুযায়ী বিভিন্ন কাজ দিয়ে থাকে। এবং আপনি যদি ক্লায়েন্টের চাহিদা অনুযায়ী কাজে দক্ষতা কারী হয়ে থাকেন ।তাহলে আপনি সেই ক্লায়েন্টের কাজগুলো আপনার দক্ষতার সাথে করে দেওয়ার বিনিময়ে আপনি ক্লায়েন্ট এর কাছ থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

বন্ধুরা আপনার যদি কোন বিষয়ে দক্ষতা থাকে এবং সেই দক্ষতা অন্যজনের কাজে ব্যবহার করে এবং তার কাজ শেষ করে তাকে দিতে পারেন এর বিনিময়ে আপনি টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

ফাইবার এমন একটি অনুরোধ ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস ওয়েবসাইট যেখানে আপনি আপনার ফ্রিল্যান্সার প্রোফাইল তৈরি করতে পারবেন। এবং আপনি যদি ফ্রিল্যান্সিং করতে চান তাহলে অবশ্যই নিচের যেকোনো একটি বিষয়ে দক্ষতা অর্জন করতে হবে।

যেমন- গ্রাফিক্স ও ডিজাইন, ডিজিটাল মার্কেটিং, লেখা ও অনুবাদ, ভিডিও ও অ্যানিমেশন, মিউজিক ও অডিও, প্রোগ্রামিং ও টেক, ব্যবসা, লাইফস্টাইল, ডেটা ইত্যাদি।

এগুলোর ভেতরে আপনার যদি কোন বিষয়ে পরিপূর্ণ দক্ষতা থাকে তাহলে আপনি ফাইবার মার্কেটপ্লেসে একটি ফ্রিল্যান্সার হিসেবে এক প্রোফাইল তৈরি করতে পারবেন। এবং ফাইবার মার্কেটপ্লেস থেকে আপনার দক্ষতা অনুযায়ী আপনি কাজ পাবেন যা ঘরে বসেই আপনি কাজগুলো সম্পন্ন করতে পারবেন। এবং মোটামুটি ভালো অর্থ উপার্জন করতে পারবেন।

ফাইবার মার্কেটপ্লেসের বিভিন্ন কাজের জন্য বিভিন্ন মূল্য পাওয়া যায় তা নির্ভর করে আপনার দক্ষতা এবং কাজের সময় অনুযায়ী। ফাইবার ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসে এমনও ফ্রিল্যান্সার আছেন যারা এক ঘন্টার জন্য $10 থেকে $100 ডলার পর্যন্ত চার্জ নিয়ে থাকেন। তাদের দক্ষতার জন্য।

ফাইবার থেকে কত টাকা ইনকাম করা যায়?

বন্ধুরা, Fiverr থেকে, টাকা আয়ের কোন লিমিট নেই, এখানে আপনি আনলিমিটেড টাকা ইনকাম করতে পারবেন, আপনার কি দক্ষতা আছে তার উপর নির্ভর করে আপনি সেই অনুযায়ী টাকা ইনকাম করতে পারবেন, আপনি যখন নতুন ভাবে Fiverr এ রেজিস্ট্রেশন করবেন তখন আপনি কাজ পাবেন। কিছু সমস্যা আছে এবং আপনি কাজের জন্য কম টাকা পাবেন।

কিন্তু আপনি এখানে একটু বুড়ো হলেই মানুষ আপনাকে চিনতে শুরু করে, তখন আপনার কাজের কোন কমতি থাকে না, তারপর আপনি আপনার কাজ অনুযায়ী চার্জ নেন, যেখান থেকে আপনি খুব ভালো আয় করতে পারেন।

শেষ কথা

আশা করি আজকের আর্টিকেলটি পড়ে Fiverr.com কি ?এবং কিভাবে ফাইবার থেকে ইনকাম করা যায় সেই সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পেরেছেন। আজকের আর্টিকেল সম্পর্কে আপনার কোন মতামত থাকলে অবশ্যই আমাদের কমেন্টে জানাবেন,ধন্যবাদ।

Leave a Comment